আজ রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি
আজ রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

জানি তুমি আসবে

ফাতেমা তুজ জোহরা
জানি তুমি আসবে

জীবনের সকল ব্যস্তময়তা উপেক্ষা করে
শরতের নীল আকাশ হয়ে।
শিউলি ফুলের অবাধ্য প্রেম নিয়ে
আমার মনের নীল বেদনা মুছে দিতে
তোমার ঠোঁটের মৃদু হাসিতে।
তোমায় পেয়ে জীবন সেতো
নতুন রূপে সাজবে,
হ্যাঁ
তুমি আসবে
কোন এক শীতের সকালে ঘুম জড়ানো
আবেসে
আলতো করে ছুঁয়ে দেবে আমায়,
তোমার বুকের উষ্ণ পশমে।
খুব আদরে জড়িয়ে নেবে আমায়।
কুয়াশা চাদরে ঘিরে ধরা চারিপাশ
তুমি, আমি আর নীরবতা নিঃশ্বাস।
শিশির ভেজা ঘাসের উপর আমায় নিয়ে
ভাসবে,
জানি তুমি আসবে।
শত প্রতিশ্রুতির পূর্ণতা দানে
সকল বাঁধা-বিপত্তি পেছনে ফেলে
শত আঘাতের চিহ্ন মুছে।
আমার হাতে রেখে হাত বয়ে যাবে বহুদূর
কোন স্বার্থপরতা থাকবে না তার মাঝে
দৃষ্টি কেবল আমার দৃষ্টি পাণে।
হৃদয়ে জমা যত অভিযোগ যত প্রশ্নমালা
হয়ে যাবে সব নিয়নের আলো।
মাঝে মাঝে শীতের মাতলা হাওয়া
হিমায়িত করে তুলবে দুটি দেহ
আধো ফুটি ফুটি রবি তাইনা দেখে হাসবে,
জানি তুমি আসবে।
আমার নয়ন ঝরা অশ্রু মুছিয়ে দিতে
তোমার ঐ দুহাতে
আমার এই তিক্ততাময় জীবনটাতে
সবুজের শান্তি বার্তা হয়ে।
প্রথম বসন্তের যৌবন ঘেরা
কিশোরীর,
অশ্রাব্য, অতৃপ্ত উদাসীনতার মতো
যার দৃষ্টি বাতায়ন ভেদ করে
খোলা আকাশের পাণে,
হৃদয়ে জড়িয়ে হাজারো অনুভূতি।
করুণ চাহনিতে চায় অনেক কিছুই
জ্যোসনা গায়ে মাখবে,
একদিন তুমি আসবে।
তুমি আসবে, তুমি আসবে, তুমি আসবে
আমার এই জীর্ণ কুটিরে,
বসন্তের কোন এক নিশিত রাতে
আমি বাসন্তী রাঙ্গা শাড়িতে
থাকবো তোমার অপেক্ষায়।
তুমি আসবে শত ফুলের সমাহার হয়ে,
ফুলের গন্ধে মৌ মৌ সারা ঘর
প্রজাপতির নীল খামে একটি পত্র নিয়ে
স্বর লিপির কাবিননামা।
আমি অবাক হয়ে তাকিয়ে রবো
তোমার পাণে।
সেই নিশিত রাত তখন যেন আরও
স্তব্ধতায় ঘিরে ধরবে।
নিশাচর হয়ে আমায় ভালোবাসবে
জানি তুমি আসবে।

সংবাদটি লাইক, কমেন্ট ও শেয়ার করুন