আজ রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি
আজ রবিবার, ১৪ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৩০শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

রাশিয়ার সঙ্গে আপস কিংবা কোনো অঞ্চল ছাড়তে রাজি নয় ইউক্রেন

ইউক্রেন রাশিয়ার সঙ্গে কোনো আপস করতে রাজি নয় এবং যুদ্ধ শেষে কোনো অঞ্চল ছাড়তে চায় না। মঙ্গলবার এক ইউক্রেনের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা এই মন্তব্য করেছেন।

যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প সম্প্রতি ঘোষণা দিয়েছেনম তিনি দ্রুত রাশিয়া-ইউক্রেন সংঘাতের অবসান ঘটাতে পারবেন। ট্রাম্পের এ বক্তব্য সম্পর্কে জানতে চাইলে ইউক্রেনের পক্ষ থেকে স্পষ্ট জানানো হয়, কিয়েভ কোনো আপসে যেতে প্রস্তুত নয়।
ওয়াশিংটনে সফররত ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কির চিফ অব স্টাফ অ্যান্ড্রি ইয়ের্মাক সাংবাদিকদের বলেন, যুদ্ধ শেষে শান্তি প্রতিষ্ঠার বিষয়ে কোনো পরামর্শ শুনতে রাজি আছি। তবে আমরা মূল্যবোধ, স্বাধীনতা, মুক্তি, গণতন্ত্র, আঞ্চলিক অখণ্ডতা, সার্বভৌমত্ব ইত্যাদি গুরুত্বপূর্ণ বিষয়ে কোনো আপস করব না।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানীতে আগামী সপ্তাহে ন্যাটোর শীর্ষ বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে, যেখানে ইউক্রেন ইস্যু আলোচনার মূল বিষয় হতে পারে। এই প্রসঙ্গে ইয়ের্মাকের ওয়াশিংটন সফর অত্যন্ত তাৎপর্যপূর্ণ বলে মনে করা হচ্ছে।

গত সপ্তাহে প্রেসিডেন্ট প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প ও জো বাইডেনের মধ্যে অনুষ্ঠিত বিতর্কে ট্রাম্প ঘোষণা করেন, যদি তিনি নির্বাচিত হন, তবে জানুয়ারিতে দায়িত্ব গ্রহণের আগেই এই যুদ্ধের সমাধান করবেন। তবে কীভাবে তিনি তা করবেন সে বিষয়ে বিস্তারিত কিছু বলেননি।

বার্তা সংস্থা রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ট্রাম্পের প্রধান দুই উপদেষ্টা তাকে একটি পরিকল্পনা উপস্থাপন করেছেন, যেখানে উল্লেখ করা হয়েছে, রাশিয়ার সঙ্গে কিয়েভ সমঝোতায় না এলে যুক্তরাষ্ট্র সব ধরনের সহায়তা বন্ধ করে দেবে।

রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন বলেছেন, ইউক্রেনের পূর্ব ও দক্ষিণে চারটি অঞ্চল মস্কোকে ছেড়ে দিলে রাশিয়া যুদ্ধের ইতি টানবে। তবে পুতিনের এ শর্ত মেনে নেননি ট্রাম্প।

যুদ্ধের সমাধানের বিষয়ে ট্রাম্পের বক্তব্য সম্পর্কে জানতে চাইলে অ্যান্ড্রি ইয়ের্মাক বলেন, সত্যি বলতে, আমি জানি না, দেখা যাক।

সংবাদটি লাইক, কমেন্ট ও শেয়ার করুন